Homeজেলার খবরশেরপুরে বন্ধুদের সাথে নেশা করতে গিয়ে খুন হয় স্কুল ছাত্র লাবন ।...

শেরপুরে বন্ধুদের সাথে নেশা করতে গিয়ে খুন হয় স্কুল ছাত্র লাবন । শেরপুর সংবাদ

স্টাফ রিপোর্টার: শেরপুরে চাঞ্চল্যকর স্কুল ছাত্র লাবন হত্যার রহস্য উন্মোচন হয়েছে। ইতিমধ্যে হত্যাকান্ডের সাথে জড়িত ৪ জনকে পুলিশ গ্রেফতার করে ২ জনের আদালতের মাধ্যমে স্বীকা‌রো‌ক্তিমূলক জবান বন্দি গ্রহন করা হয়েছে। এ বিষয়ে ৩০ সেপ্টেম্বর শুক্রবার দুপুরে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে (সদর সার্কেল) অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. হান্নান মিয়া সদর থানায় এক প্রেস ব্রিফিংএ এ তথ্য জানিয়েছেন।

পুলিশ সূত্রে জানা গেছে, গত ২৭ সেপ্টেম্বর সদর উপজেলার ঘুঘুরাকান্দি গ্রামের মাসুদ রানার পুত্র মোঃ নাইম মিয়া উরফে লাবন স্কুল থেকে বাড়ি ফিরে হাডুডু খেলা দেখতে যায়। কিন্তু সে খেলা দেখে আর বাড়ি না ফেরায় তার বাড়ির লোকজন লাবনকে ওই দিন আর খুঁজে পায়নি।

এরপরের দিন সকালে তার মা লাইলি বেগম ছেলেকে খোঁজাখুজির এক পর্যায়ে ওই গ্রামের জনৈক জাফর মিয়ার লেবু বাগানের ভিতর লাবনের মরদেহ পড়ে থাকতে দেখে। পরে এ ঘটনায় শেরপুর সদর থানায় মামলা দায়ের করা হলে পুলিশ হতাকান্ডের ১৬ ঘন্টার মধ্যে ৪ আসামীকে গ্রেফতার করে এবং ২ আসামীর স্বীকা‌রো‌ক্তিমূলক জবান বন্দি রেকর্ড করা হয়।

এবিষয়ে অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. হান্নান মিয়া (সদর সার্কেল) জানায়, লাবন ছিলো নেশাগ্রস্থ। ঘটনার দিন গ্রেফতারকৃত নয়ন, হৃদয়, মনির ও আসলামের সাথে লাবন ওই লেবু বাগানে গিয়ে পলিথিনের ভিতর ড্যান্ডি গাম নেশা করতে যায়। এক পর্যায়ে নেশা করা নিয়ে তারা নিজেদের মধ্যে হাতা-হাতি শুরু হলে এক পর্যা‌য়ে লাবনকে সবাই মিলে নেশাগ্রস্থ অবস্থায় হত্যা করে পালিয়ে যায়।

পরে ঘটনাস্থল পরির্দশন করে নেশার ব্যবহৃত ড্যান্ডি গাম ও পলিথিন উদ্ধার করে। এরপর পুলিশের বিশেষ অভিযানে তাদের গ্রেফতার করা হয়। গ্রেফতারকৃতদের মধ্যে প্রথমে ঘটনার পরের দিনই ২৮ সেপ্টেম্বর নয়ন ও হৃদয়কে গ্রেফতার করে তাদের জিজ্ঞাসাবাদে ২৯ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার অন্য দুই জনকে গ্রেফতার করা হয়। ইতিমধ্যে নয়ন ও হৃদয় আদালতে তাদের দোষ শিকার করে ১৬৪ ধারায় স্বীকা‌রো‌ক্তিমূলক জবান বন্দি প্রদান করেন।

RELATED ARTICLES

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here

Most Popular